গুচ্ছভর্তিতে বিভাগ পরিবর্তনের দাবিতে মানববন্ধন

বিশ্ববিদ্যালয়ে গুচ্ছভর্তিতে বিভাগ পরিবর্তনের সুযোগ রাখার দাবি জানিয়েছেন শিক্ষার্থীরা। সোমবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) সামনে মানববন্ধন করে এমন দাবি জানিয়েছেন ভর্তিচ্ছু একদল শিক্ষার্থী।

রাজধানীর আগারগাঁও ইউজিসি কার্যালয়ের সামনে ‘গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষায় বাংলা, ইংরেজি ও আইসিটি পরীক্ষা দিয়ে বিভাগ পরিবর্তন এবং গুচ্ছ সিলেকশন পদ্ধতি বাতিল’ দাবি সম্বলিত ব্যানারে শিক্ষার্থীরা মানববন্ধন করেন।

তারা জানিয়েছেন, গুচ্ছভর্তি কমিটির দুটি সিদ্ধান্তের কারণে ৭ থেকে ৮ লাখ শিক্ষার্থী ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবেন না। এ জটিলতা নিরসনের জন্য ইউজিসির হস্তক্ষেপ চেয়ে তারা এ কর্মসূচি পালন করেছে।

মানববন্ধনে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী মোহাম্মদ রাকিব হোসেন বলেন, আমাদের মঙ্গলের জন্যই গুচ্ছভর্তি পরীক্ষা হচ্ছে। তাই আমরা গুচ্ছভর্তি পরীক্ষাকে সাধুবাদ জানাই। কিন্তু ভর্তি পরীক্ষায় গুচ্ছভর্তি কমিটি বিভাগ পরিবর্তন করার জন্য কোনো আলাদা ইউনিট থাকবে না।

নিজ নিজ ইউনিটে পরীক্ষা দিয়ে বিভাগ পরিবর্তন করতে হবে এবং সিলেকশন পদ্ধতির মাধ্যমে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এর ফলে ৮ লাখ শিক্ষার্থী গুচ্ছভর্তি পরীক্ষা থেকে বঞ্চিত হতে যাচ্ছেন। অনেকেই এর ফলে উচ্চশিক্ষা থেকে বঞ্চিত হবেন।

তিনি বলেন, আমাদের দাবি- মানবিক ইউনিটের সঙ্গে বাংলা, ইংরেজি ও আইসিটি বিষয়ে পরীক্ষা দিয়ে বিভাগ পরিবর্তন এবং গুচ্ছভর্তি পরীক্ষায় সিলেকশন পদ্ধতি বাতিল।

এই দাবিতে শিক্ষামন্ত্রীকে স্মারকলিপি দেয়ার পর তিনি দাবি মেনে নেয়ার আশ্বাস দিয়েছিলেন। কিন্তু গুচ্ছ কমিটি আমাদের দাবি প্রত্যাখান করে তাদের সিদ্ধান্ত বহাল রয়েছে। সেজন্য আজকে আমরা মানববন্ধন করে তাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।’

এর আগে গত ৮ ফেব্রুয়ারি একই দাবিতে শিক্ষামন্ত্রীকে স্মারকলিপি দেন তারা। স্মারকলিপিতে উল্লেখ করা হয়, আমরা উচ্চশিক্ষা থেকে বঞ্চিত হতে চাই না। আমাদের দাবি- মানবিক ইউনিটের সঙ্গে বাংলা, ইংরেজি ও আইসিটি বিষয়ে পরীক্ষা নিয়ে বিভাগ পরিবর্তন করার সুযোগ দিতে হবে এবং ভর্তি পরীক্ষায় সিলেকশন পদ্ধতি বাতিল করতে হবে।