যে কারণে অনুদান চান শাকিব খান

বাংলা সিনেমার বর্তমান সময়ের জনপ্রিয় চিত্রনায়ক শাকিব খান। গেল এক দশক থেকে এক নম্বর অবস্থানে রয়েছেন তিনি। অপ্রতিদ্বন্দ্বী হওয়ায় সিনেমায় হাঁকিয়েছেন আকাশ ছোঁয়া পারিশ্রমিক।

অভিনয়ের পাশাপাশি শাকিব খান এসকে ফিল্মসের ব্যানারে সিনেমা নির্মাণও করেছেন। তার প্রতিষ্ঠানের ব্যানারে সবশেষ মুক্তি পায় কাজী হায়াত পরিচালিত ‘বীর’ সিনেমাটি। এরপর কয়েকটি সিনেমা নির্মাণের ঘোষণা দেন তিনি। তবে সেগুলো আশার মুখ এখনও দেখেনি। এদিকে চলচ্চিত্র নির্মাণের জন্য অনুদান চেয়ে তথ্য মন্ত্রণালয়ে আবেদন করেছেন এই চিত্রনায়ক।

শাকিব খান বলেন, অনুদানের জন্য সিনেমা জমা দিয়েছি। আমার মতে অনুদানের জন্য যারাই সিনেমা জমা দিয়েছেন তাদের সবাইকেই অনুদান দেওয়া উচিৎ।

দেশীয় চলচ্চিত্রে সবচেয়ে বেশি পারিশ্রমিকপ্রাপ্ত এ নায়ক ও প্রযোজকের সিনেমা নির্মাণে হঠাৎ সরকারি অনুদানের জন্য আবেদন করতে হলো কেন? তারও ব্যাখা দিয়েছেন শাকিব খান।

শাকিব এ প্রসঙ্গে বলেন, করোনার সময় অনেককিছুতে আমরা পিছিয়ে গেছি। আমাদের আগের মতো অবস্থা আর নেই। অনুদানের টাকা দিয়েই তো আর একটা ভালো সিনেমা হবে না। আমাদের ভালো সিনেমা বানাতে হলে আরও টাকা এর সাথে যোগ করে ভালো সিনেমা বানানো দরকার। সরকারের তরফ থেকে অনুদান দিয়ে যারা ভালো সিনেমা বানায় তাদের হেল্প হবে। প্রেক্ষাগৃহে গিয়ে যারা ভালো সিনেমা দেখেন তাদের জন্য সিনেমা নির্মাণ করতে সরকার দুই তিন বছর অনুদান দিলেই ভালো সিনেমা নির্মাণ হবে, সেই সাথে ইন্ডাস্ট্রি ঘুরে দাঁড়াবে।

গত বছর ২৮ ডিসেম্বর নিজের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের ব্যানারে ‘প্রিয়তমা’ সিনেমার জন্য অনুদানের আবেদন করেন একযুগের বেশি দাপিয়ে বেড়ানো নায়ক শাকিব খান।